‘বিরিয়ানি খেতে পাকিস্তান গিয়েছিলেন নরেন্দ্র মোদি’

নির্বাচন সামনে রেখে সরগরম হয়ে ওঠেছে ভারতের রাজনৈতিক অঙ্গন। প্রতিপক্ষকে ঘায়েল করতে তৎপর সবাই। এবার বিরিয়ানি খাওয়ার জন্য পাকিস্তান গিয়েছিলেন বলে মোদিকে একহাত নিলেন বিরোধী দল কংগ্রেসের সাধারণ সম্পাদক প্রিয়াঙ্কা গান্ধী।

শুক্রবার উত্তরপ্রদেশের মিরাটের জনসভায় প্রিয়াঙ্কা বলেন, ২০১৫ সালে তৎকালীন পাক প্রধানমন্ত্রী নওয়াজ শরিফের সঙ্গে দেখা করার নামে নরেন্দ্র মোদি পাকিস্তানে গিয়েছিলেন শুধু বিরিয়ানি খেতে।

নির্বাচনী প্রচারণায় অংশ নিতে প্রিয়াঙ্কা গান্ধী এখন উত্তরপ্রদেশে অবস্থান করছেন। প্রচারণার তৃতীয় দিন প্রায় ১৫ কিলোমিটার দীর্ঘ একটি র‌্যালির নেতৃত্ব দেন প্রিয়াঙ্কা গান্ধী। এ সময় হাজার হাজার কংগ্রেস সমর্থক নরেন্দ্র মোদির বিরুদ্ধে তারা স্লোগান দেন। তাদের হাতে প্ল্যাকার্ডে লেখা ছিল- ‘ইন্দিরা গান্ধী রিটার্নস’।

র‌্যালি শেষে সাংবাদিকদের সঙ্গে আলাপকালে প্রিয়াঙ্কা জানান, নির্বাচনে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করার সিদ্ধান্ত এখনও নেননি। তবে দলের প্রয়োজনে যদি নামতে হয় তাহলে অবশ্যই তিনি নির্বাচনে লড়বেন।

এ সময় এক প্রশ্নের জবাবে প্রিয়াঙ্কা বলেন, নরেন্দ্র মোদি তো পাকিস্তান গিয়েছিলেন বিরিয়ানি খেতে। কংগ্রেস ক্ষমতায় এলে পাকিস্তানিরা আনন্দে হাততালি দেবে বলে কিছুদিন আগে কংগ্রেসকে কটাক্ষ করেছিলেন নরেন্দ্র মোদি। মোদির ওই মন্তব্যের কড়া জবাব দিয়ে প্রিয়াঙ্কা বলেন, তারা কী করবেন, না করবেন, সেটা তো ওই দেশের নাগরিকদের নিজস্ব ব্যাপার। কিন্তু শুধু বিরিয়ানি খেতে মোদি পাকিস্তান গিয়েছিলেন।

অযৌধ্যার বিতর্কিত রাম মন্দির স্থাপনায় পূজা দেবেন কি না সাংবাদিককের এ প্রশ্নের উত্তরে প্রিয়াঙ্কা জানান, যেহেতু এখন মামলাটি বিচারাধীন, তাই কোনোভাবেই অযোধ্যার রামমন্দিরে গিয়ে তিনি পুজো দেবেন না।

২০১৫ সালে নওয়াজ শরীফের শাসনামলে অনেকটা বিনা আমন্ত্রনেই পাকিস্তান সফর করেছিলেন ভারতের বর্তমান প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি। লাহোর বিমানবন্দরে মোদিকে ব্যাপক অভ্যর্থনা জানানো হয়েছিল। সংক্ষিপ্ত সফর শেষে পাকিস্তান সফর নিয়ে টুইট করেছিলেন নরেন্দ্র মোদি।

টুইটবার্তায় মোদি লিখেছিলেন, নওয়াজ শরীফ শুধু বিমানবন্দরে তাকে রিসিভি করতেই আসেননি, বিদায় দিতেও এসেছিলেন।

সূত্র: এনডিটিভি ও ডন

কমেন্টসমুহ
Secret Diary Secret Diary

Top