দুর্ঘটনা কবলিত বিমানের ১৯ আরোহী হাসপাতালে

মিয়ানমারের ইয়াঙ্গুন বিমানবন্দরে অবতরণের সময় দুর্ঘটনায় পড়েছে বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইন্সের একটি ফ্লাইট। বুধবার সন্ধ্যায় ঢাকা থেকে ছেড়ে যাওয়া ফ্লাইটটি ইয়াঙ্গুন বিমানবন্দরে অবতরণের সময় রানওয়ে থেকে ছিটকে পড়ে। ছিটকে পড়া বিমানটি পরে ভেঙ্গে তিন টুকরো হয়ে যায়।

মিয়ানমারের ইয়াঙ্গুনে বিমানবন্দরের রানওয়ে থেকে ছিটকে পড়া বাংলাদেশে বিমানের ১৯ যাত্রীকে হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে বলে জানিয়েছেন দেশটিতে নিযুক্ত বাংলাদেশের রাষ্ট্রদূত মঞ্জুরুল ক‌রিম চৌধুরী।

রাত পৌনে নয়টায় তিনি বলেন, তি‌নি নর্থ ওকালাপা হাসপাতা‌লে আছেন। ১৯ জন যাত্রী সেখা‌নে ভ‌র্তি হয়েছেন। এছাড়া ১১ জনকে প্রাথ‌মিক চি‌কিৎসা দিয়ে হাসপাতাল থেকে ছেড়ে দেওয়া হয়েছে।

এই ঘটনায় পাইলটসহ বেশ কয়েকজন যাত্রী আহত হয়েছেন বলে জানিয়েছেন বাংলাদেশ বিমানের জনসংযোগ বিভাগের জেনারেল ম্যানেজার শাকিল মেরাজ। তিনি বলেন, ফ্লাইট বিজি০৬০ আজ সন্ধ্যায় ঢাকা থেকে ইয়াঙ্গুন যায়। ৬টা ২০ মিনিটের দিকে অবতরণের সময় খারাপ আবহাওয়ার কারণে উড়োজাহাজটি রানওয়ে থেকে ছিটকে যায়। উড়োজাহাজটিতে ২৯ জন যাত্রীসহ মোট ৩৩ জন আরোহী ছিলেন। যাত্রীদের মধ্যে একটি শিশুও ছিল।

বাংলাদেশ বিমানের জনসংযোগ বিভাগের জেনারেল ম্যানেজার শাকিল মেরাজ আরো জানান, সব যাত্রীই এখন নিরাপদে আছেন। কারো প্রাণহানির শঙ্কা নেই বলেও জানান তিনি।

তিনি আরো জানান, রাত ১০টায় বিমান বাংলাদেশ ঢাকা থেকে একটি বিশেষ বিমান পাঠাবেন ওই যাত্রীদের দেশে ফিরিয়ে আনার জন্য।

চীনা বার্তা সংস্থা সিনহুয়া জানিয়েছে, ছিটকে পড়ার পর বিমানটি তিন খণ্ড হয়ে যায়।

রাশিয়ার স্পুটনিক নিউজ জানিয়েছে, মিয়ানমারের ইয়াংগুন বিমানবন্দরে বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইন্সের একটি উড়োজাহাজ ভেঙে ৩ টুকরো হয়েছে বলে টুইটে জানিয়েছেন মিয়ানমারের এক নাগরিক।
উড়োজাহাজটি যখন অবতরণ করছিল, তখন এলাকায় বৃষ্টি হচ্ছিল। এতে উড়োজাহাজটি রানওয়ে থেকে ছিটকে পড়ে।

কমেন্টসমুহ
BD Life BD Life

Top