খুচরা বাজারে কিছুটা কমেছে ব্রয়লার মুরগির দাম

রাজধানীর খুচরা বাজারে কিছুটা কমেছে ব্রয়লার মুরগির দাম। খুচরা বাজারগুলোতে কেজিতে ১০ টাকা কমে ব্রয়লার মুরগি এখন বিক্রি হচ্ছে ১৪০ টাকা কেজিতে। মাসের শুরুতে খুচরা বাজারে প্রত্যেক কেজি ব্রয়লার মুরগি ১৬০ টাকার নিচে পাওয়া যাচ্ছিল না। এ নিয়ে চলতি মাসে দুই দফায় ব্রয়লার মুরগির দাম কেজিতে ২০ টাকা কমলো।

জানা যায়, খুচরা বাজারে ব্রয়লার মুরগির দাম কিছুটা কমলেও ‘পাকিস্তানি কক’ বা ‘সোনালী মুরগি’ এবং লাল লেয়ার মুরগির দাম অপরিবর্তিত রয়েছে। সোনালী মুরগির কেজি বিক্রি হচ্ছে ২৫০-২৮০ টাকায়। আর লাল লেয়ার মুরগির কেজি বিক্রি হচ্ছে ২০০-২২০ টাকা।

মুরগি ব্যবসায়ী মতিন বলেন, লকডাউনের কারণে হোটেলগুলোর বিক্রি কমে গেছে। এছাড়া অন্যান্য অনুষ্ঠানও হচ্ছে না। এ কারণে ব্রয়লার মুরগির চাহিদাও কমে গেছে। তাছাড়া সাধারণ মানুষও কেনা কমিয়ে দিয়েছে। লকডাউন শুরুর আগে ব্রয়লার মুরগি ছিল ১৬০ টাকা এবং লাল লেয়ার মুরগি ২৩০ টাকা কেজি ছিল। লকডাউন ঘোষণার পর সোনালী মুরগির কেজি ২৫০ টাকায় নেমে আসে।

রামপুরা মোল্লাবাড়ির ব্যবসায়ী আলমগীর হোসেন জানান, প্রতিদিন আমরা যে মুরগি বিক্রি করি তার অর্ধেকের বেশি নেয় বিভিন্ন হোটেল। লকডাউনের কারণে এখন হোটেলগুলোতে মুরগি কেনা প্রায় ছেড়েই দিয়েছেন। লকডাউন বাড়লে আমাদের ধারণা মুরগির দাম আরও কমে যেতে পারে।

কাপ্তান বাজারের ব্যবসায়ী মিন্টু বলেন, লকডাউনের পর মুরগির বিক্রি অর্ধেকের নিচে নেমে গেছে। চাহিদা কমলে দাম কমবে এটাই স্বাভাবিক। খামারির পক্ষে তো মুরগি ধরে রাখা সম্ভব না। বিক্রির উপযুক্ত হলে মুরগি বিক্রি করে দিতেই হবে। তাতে দাম পাওয়া যাক বা না যাক। কারণ বিক্রির উপযুক্ত মুরগি ধরে রাখলেই লোকসান।

কমেন্টসমুহ
Secret Diary Secret Diary

Top