মেয়েটি কিছু বলতে চায় কিভাবে বুজবেন ?

আপনি কাউকে পছন্দ করেন অথচ বলতে পারছেন না। মেয়েটিকে প্রেমের প্রস্তাব দেবেন সেই সাহসও নেই। দেখলেই কেমন যেন `ভ্যাবলা` হয়ে যান। পেন্ডুলামের মতো দোদুল্যমান মনে টানাপোড়েন। মেয়েটিও কি ভালোবাসে আপনাকে? সে-ও কি প্রেমে পড়েছে আপনার?

নাকি সবটাই একজনের চিন্তা? নিজেরই শুধু ভালোলাগা? এ অবস্তায় কী করবেন তাও ভেবে পাচ্ছেন না? না-কি বলেই ফেলবেন ভালোবাসার কথা, আই লাভ ইউ? এসব বিষয়ে শুধু কি আপনারই দুর্বলতা। কিন্তু, বুঝবেন কী করে যে যাকে নিয়ে ভাবছেন তারও দুর্বলতা আছে? জেনে নিন নিচের কারণগুলো।

১. সেজেগুজে থাকা : কফিশপে ঠিক করেছেন কলেজ শেষে একসঙ্গে দু`জনে কফি খেতে যাবেন। মেয়েটিও রাজি। দেখলেন বেশ সেজেগুজে এসেছে। একবার নয়, আপনার সঙ্গে কোথাও যাওয়ার কথা হলেই, মেয়েটি খুব সচেতন ভাবেই সাজগোজ করে আসে। বুঝে নেবেন কিছু একটা ঘটতে চলেছে।

২. চুল নিয়ে খেলা : নিরিবিলিতে থাকলে দেখবেন, মেয়েটি একটু ঘনিষ্ঠ হওয়ার চেষ্টা করছে। আপনার সঙ্গে কথা বলার সময় চুল নিয়ে খেলে যাচ্ছে আনমনে। চোখের দিকে তাকালে বুঝবেন, তার শরীরী ভাষাই বলে দিচ্ছে, কী চায় আর কী চায় না। নির্ভাবনায় তাকে বলতে পারেন।

৩. চোখে চোখে কথা বলো : এটা ঘটনা, আপনাকে যদি অপছন্দ হয়, কোনো মেয়েই আপনার সঙ্গে ঘুরতে যেতে রাজি হবে না। যদি, দেখেন মেয়েটি আপনার কথা মন দিয়ে শুনছে, পলক পড়ছে না, একদৃষ্টে আপনার চোখের দিকে তাকিয়ে, বুঝবেন তার মনে আপনার জন্য একটা জায়গা রয়েছে।

৪. চলো না কাছাকাছি কোথাও ঘুরে আসি : যদি দেখেন, মেয়েটি আপনাকে বারবার বলছে, কোথাও ঘুরতে যাওয়ার জন্য, বুঝবেন, স্বস্তি বোধ না-করলে কখনোই বলত না। জানবেন, নিরিবিলিতে আপনার সঙ্গ পেতেই এভাবে পীড়াপীড়ি।

৫. প্রেমের পরশ : যখন কোনো অছিলায় বা ছুঁতোনাতায় মেয়েটি আপনাকে স্পর্শ করবে, বুঝবেন তলে তলে জল অনেক দূর গড়িয়েছে।

৬. কথায় কথায় হেসে লুটোপুটি : ধরুন কলেজ ক্যান্টিনে বা কফিশপে বসে বন্ধুরা চুটিয়ে আড্ডা দিচ্ছেন। সেখানে সেই মেয়েটিও আছে। তার মনোযোগ কাড়তে আপনি হয়তো মজা করে কিছু বলার চেষ্টা করছেন। জানেন যদিও তাতে কারো হাসি পাবে না। দেখলেন কেউ হাসলও না। একমাত্র সে ছাড়া। বুঝবেন, এ-ও প্রেমেরই লক্ষণ।

৭. রেগে আগুন : মেয়েটির সামনে ভুলেও যদি অন্য মেয়ের প্রশংসা করেছেন বা কিঞ্চিত আগ্রহ দেখিয়েছেন, দেখবেন হাসিখুশি মুখটা কেমন বর্ষার মেঘের মতো কালো হয়ে যায়। রাগের মাথায়, যা নয় তাই দু-কথা আপনাকে শুনিয়েও দিতে পারে। নিশ্চিত থাকুন, মেয়েটি আপনাকে ভালোবাসে।

৮. আমায় একটু বাড়ি পৌঁছে দেবে : যদি কখনো এমন প্রস্তাব পান, ষোলো আনার ওপর আঠারো আনা নিশ্চিত থাকুন মেয়েটিও আপনাকে ভালোবাসে।

এই আটটি লক্ষণ যদি মিলে যায়, দেরি না-করে, সংকুচিত না-হয়ে স্মার্টলি বলেই ফেলুন। কারণ, প্রেমের প্রস্তাব দিয়ে, প্রত্যাখ্যাত হওয়ার সম্ভাবনা আর নেই। হতেই পারে সে-ও আপনার বলার অপেক্ষায়। ভালোবাসা তো আর অপরাধ নয়।

কমেন্টসমুহ
Secret Diary Secret Diary

Top