তোয়ালের যে ভুল ব্যবহারের কারণে ত্বকের নানা সমস্যায় ভুগছেন আপনি

খুব বেশি মুখে ব্রণ বা অন্যান্য ত্বকের ইনফেকশনে ভোগেন আপনি? কিছুদিন পরপরই ত্বকে র্যা শ উঠতে থাকে? যদি ভেবে থাকেন অনেক পরিষ্কার পরিচ্ছন্ন থাকার পরও কেন এই ধরণের ত্বকের সমস্যায় ভুগছেন তাহলে আপনাকে অবশ্যই নজর দিতে হবে আপনার ব্যবহৃত তোয়ালের দিকে। ‘লাইলাতি’ বিউটিপার্লারে কর্মরত বিউটি এক্সপার্ট সানজিদা আবেদীন প্রিয়.কমকে বলেন, ‘অনেক নারীই পার্লারে আসেন শুধুমাত্র ত্বকের এই র্যাকশ সংক্রান্ত বিষয় নিয়ে, যা মূলত নিজেদের ভুলের কারণেই হয়ে থাকে’। তিনি প্রিয়.কমকে আরও জানান, ‘আমরা মূলত তোয়ালে যা দিয়ে ত্বক পরিষ্কার করি তা ব্যবহার করতে ভুল করে থাকি বলেই অনেক সময় ত্বকের নানা সমস্যায় ভুগতে হয়’। সত্যিই, আপনি যতোই পরিষ্কার পরিচ্ছন্ন থাকার চেষ্টা করুন না কেন তোয়ালে ব্যবহারের কিছু ভুলের কারণে আপনার পরিশ্রম একেবারেই মাঠে মারা যাবে। এই ভুলগুলোর কারণে ত্বকের ক্ষতি হচ্ছে প্রতিনিয়ত। জানতে চান কি সেই ভুলগুলো?

১) একই তোয়ালে ব্যবহার

আপনি কি পুরো দেহ মোছার কাজে একটি মাত্র তোয়ালে ব্যবহার করেন? যদি তাই হয় তাহলে আপনার ত্বকের অনেক বড় ক্ষতি করছেন আপনি। বিশেষ করে মুখের ত্বকের জন্য। বিউটি এক্সপার্ট সানজিদা প্রিয়.কমকে বলেন, ‘পুরো দেহের জন্য অন্তত ৩ টি তোয়ালে ব্যবহার করা উচিত, যদি তা না পারেন তাহলে অন্তত মুখ মোছার জন্য তোয়ালে আলাদা করা অবশ্যই জরুরী’। এর কারণ হচ্ছে মুখের ত্বক অনেক বেশি সেনসিটিভ দেহের অন্যান্য অংশের তুলনায়। তাই এই ভুলটি করবেন না, এই ভুলের কারণেই ব্রণ আপনার পিছু ছাড়ছে না।

২) তোয়ালে পরিষ্কার না রাখা

আচ্ছা, আপনি আপনার ব্যবহৃত তোয়ালে কতদিন পরপর পরিষ্কার করেন? জামা কাপড়ের মতো গা মোছার তোয়ালেও নিয়মিত সঠিকভাবে পরিষ্কার করা জরুরী। তা না হলে তোয়ালেতে জমে থাকা ব্যাকটেরিয়ার কারণেই আপনার ত্বকে ইনফেকশন হতে পারে। মুখ মোছার তোয়ালে ১ দিন পর পর এবং গা মোছার তোয়ালে সপ্তাহে ১ দিন পরিষ্কার করে নেয়া উচিত খুব ভালো করে। এতে জীবাণু দ্বারা আক্রান্তের সম্ভাবনা থাকে না।

৩) তোয়ালের কাপড় না দেখা

তোয়ালের কাপড়ের দিকেও কিন্তু নজর দেয়া অত্যন্ত জরুরী। শক্ত আঁশযুক্ত তোয়ালে মুখের ত্বকের জন্য খুবই ক্ষতিকর বলে প্রিয়.কমকে জানান বিউটি এক্সপার্ট সানজিদা। এতে মুখের নরম ত্বক চিরে যায় এবং ত্বকের মারাত্মক ক্ষতির সম্ভাবনা থাকে। তাই নরম ধরণের তোয়ালে ব্যবহার করার পরামর্শ দেন তিনি অন্তত মুখ মোছার জন্য।

৪) তোয়ালে ব্যবহারের পর

গোসল করে এসে বিছানার উপরেই তোয়ালে ফেলে চলে যাওয়ার অভ্যাস অনেক খারাপ একটি অভ্যাস। এতে তোয়ালে সঠিকভাবে শুকোতে পারে না এবং ব্যাকটেরিয়া বংশবিস্তারের সুবিধা পায়। তোয়ালেতে পানি লাগলেই তা বাতাসে ছড়িয়ে দিয়ে শুকিয়ে নিতে হবে। একেবারেই ভেজা রাখবেন না তোয়ালে। নতুবা ত্বকের ইনফেকশনের জন্য আপনার এই অভ্যাসই দায়ী থাকবে।

৫) তোয়ালে পরিবর্তন

তোয়ালে একেবারেই ব্যবহারের অযোগ্য হয়ে না যাওয়া পর্যন্ত তা ব্যবহার করেই চলা খুবই বোকামির কাজ। মুখ মোছার তোয়ালে ৩ মাস পরপর এবং গা মোছার তোয়ালে ৬ মাস পর পর পরিবর্তন করা জরুরী। ফেলনা তোয়ালে দিয়ে অন্য কিছু করুন। কিন্তু তারপরও তা ব্যবহার করবেন না।

তোয়ালের কারণেই অনেক সময় আপনার সৌন্দর্যহানি হয়ে থাকে। তাই তোয়ালে ব্যবহারের ক্ষেত্রে একটু সচেতনতা আবশ্যক। নিজের সুস্থতা ও ত্বক ভালো রাখার জন্য সতর্ক থাকুন নিজেই।

Photo source: wikihow.com

কমেন্টসমুহ
Secret Diary Secret Diary

Top