কম খরচে মাস পার!

বেতন পেতে দুদিন দেরি হলে তর সইতে চায় না মোটেও। শখের কেনাকাটার সঙ্গে নানা প্রয়োজনের ধাক্কা আপনাকে অস্থির করে রাখে। তারপর বেতন পেলে অপেক্ষা থাকে ছুটির দিনের। আগে লিখে রাখা লম্বা তালিকা নিয়ে বের হয়ে যান এইদিনে। এটা ওটা কেনা আর সিনেমা দেখার পর পকেট একদমই ফাঁকা। তাই আবার শুরু হয় টানাটানির মধ্য দিয়ে চলা। কিন্তু এমন পরিস্থিতি কে বা আশা করে বলুন? তাই বুদ্ধি দিয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণ আনা জরুরি, যাতে কম খরচে মাস পার হয়ে যায়। সেজন্য-

প্রথমত: মাসের আয়ের টাকা হাতে আসলে আগে প্রয়োজনীয় খাতে ভাগ করে নিতে হবে। কতটুকু জমাবেন, কোন টাকা কোথায় কাজে লাগাবেন সবকিছু। এরপর মাসের খরচের টাকা আলাদা করে সেখান থেকে কেনাকাটা করার চিন্তা করুন। কোনো অবস্থাতেই এটা বাড়ানোর চিন্তা করা যাবে না। জেনে রাখবেন, অন্যখাতের টাকা কেনাকাটায় খরচ করলে আপনাকে হাত টানাটানির মধ্যে পড়তেই হবে।

দ্বিতীয়ত: নিজের আয়ের বেশি খরচ করার চিন্তা করা যাবে না। তাই সাবধান হতে হবে ক্রেডিট কার্ড ব্যবহারে। ধারে কেনাকাটা করার জন্য জনপ্রিয় ক্রেডিট কার্ডটি আপনাকে ঋণের ফাঁদে ফেলে দিতে পারে। যদি ক্রেডিট কার্ড ব্যবহার করতেই হয় তাহলে সুদ জমা হওয়ার আগেই সেই টাকা পরিশোধ করে দিতে হবে।

তৃতীয়ত: কেনাকাটা করতে হবে একান্ত প্রয়োজনীয় জিনিস। হঠাৎ নতুন ইলেক্ট্রনিক্স বা জামাকাপড় কিনে হাতের টাকা শেষ করার কোনো মানে হয় না। বরং আপনার যা আছে তাই দিয়ে চলার চেষ্টা করুন। আর যদি নতুন কিছু কিনতেই হয় তবে টাকা জমিয়ে কেনা উচিৎ। নিজের বিচারবুদ্ধি প্রয়োগ করে বুঝে নিতে হবে কোনটা সত্যিই প্রযোজনীয় আর কোনটা নয়।

চতুর্থত: শুধুমাত্র আবেগের বশে কোনও কিছুর জন্য খরচ করা উচিৎ নয়। বস অথবা বান্ধবীকে খুশি করার জন্য হঠাৎ করে দামি কিছু কেনার মানে হয় না। কারও মন্তব্যের জবাব দিতেও কোনোকিছু কিনে ফেলা উচিৎ নয়। বরং মাথায় রাখা উচিৎ কোন বিষয়ে কতটা খরচ করার ক্ষমতা আপনার আছে। এরপর সিদ্ধান্ত নিয়ে খরচ করুন।

পঞ্চমত: কোনো শপিং মলে গেলে অথবা ওয়েবসাইটে বসলে যা ভাল লাগল তাই কিনে ফেললে চলবে না। এক্ষেত্রে মলে যাওয়ার আগে ঠিক করে নিতে হবে কোনটার দাম কি এবং কি কিনতে হবে। সেক্ষেত্রে প্রয়োজনে একাধিক বার যেতে হবে মলে। প্রথমে গিয়ে জিনিসপত্রের দামটা জানতে হবে তারপর সেটা মাথায় রেখে কোন জিনিস কিনতে হবে তার তালিকা বানাতে হবে। তারপর আবার মলে গিয়ে কেনাকাটা সারতে হবে। একই কথা প্রযোজ্য অনলাইলে কেনা কাটার সময়।

ষষ্ঠত: সিনেমা দেখতে গিয়ে অযথা দামী টিকিট কাটা এবং হলে বসে বেশি দামী খাবার খাওয়ার অভ্যাস মোটেও ভালো নয়। একদিনের অযথা খরচ পুরো মাসের যন্ত্রণার কারণ হতে দেয়া ঠিক নয়।

কমেন্টসমুহ
Secret Diary Secret Diary

Top