যে ৭টি কাজের জন্য কারো কাছে জবাবদিহি দেবেন না কখনোই

জবাবদিহি দেয়া বা কৈফিয়ত দেয়া হয় তখনই যখন কাজে ভুল থাকে এবং তা ঢাকার চেষ্টা করা হয়। কিন্তু আপনার নিজের মন যদি সঠিক বেঠিক দুটো জিনিসের মধ্যে পার্থক্য করতে পারে তাহলে অবশ্যই আপনার জানা উচিত আপনি যা করেছেন তা কি ঠিক করেছেন নাকি বেঠিক। সঠিক হলে তা আপনার নিজস্বতা এবং নিজের স্বত্বার সাপোর্ট পেয়েছেন দেখেই করেছেন। আর তাই সঠিক কাজের জন্য কখনোই কারো কাছে জবাবদিহি দিতে হয় না।

১) আপনি নিজে কি চিন্তা করেন এবং আপনার নিজের মতামতকে প্রাধান্য দেয়ার জন্য জবাবদিহি করতে যাবেন না কারো কাছে, কারণ এটি সম্পূর্ণ আপনার নিজস্ব ব্যাপার।

২) নিজের সাধ্যে না কুলিয়ে উঠার কারণে কাওকে না বলার প্রয়োজন হলে এবং না বলে দিলে তা নিয়ে জবাব দিতে যাবেন না।

৩) আপনার কাওকে পছন্দ নাও হতে পারে, তার মতের সাথে আপনার মিল নাও থাকতে পারে। আর এই অপছন্দের ব্যাপারটি একান্তই আপনার ব্যক্তিগত। এর জন্য কেউ আপনার কাছে জবাব চাইলেও আপনার দেয়া উচিত নয়।

৪) নিজের সিদ্ধান্ত নিজে গ্রহণ এবং পরিবর্তনের পুরো দায়দায়িত্ব আপনার নিজের। এর জন্য যদি কখনো আপনার ক্ষতিও হয়ে থাকে তাহলে সেটাও আপনার জন্যই হয়েছে। এর এর কৈফিয়ত অন্য কেউ চাইতে পারেন না, সুতরাং কাওকে দিতেও যাবেন না।

৫) নতুন কিছু করতে গেলে সবসময়েই যে সফলতা আসবে তা নয়, অনেক সময় নতুন কিছু করতে গিয়ে বিফলতাই কপালে জুটে। আর এই নিয়ে মানুষের প্রশ্নের এবং দোষারোপের সীমা থাকে না। কিন্তু এই ব্যাপারে আপনার কাছে কেউ কৈফিয়ত চাইলে জবাব দিতে যাবেন না।

৬) কাওকে খুশি করতে গিয়ে মিথ্যা বলে তাকে খুশি করার চেষ্টা না করার কারণে কখনোই নিজেকে দোষারোপ করবেন না এবং অন্য কেউ যদি বলে আপনার তাকে খুশি করার প্রয়োজন ছিল তাহলেও তাকে এই ব্যাপারে জবাবদিহি করতে যাবেন না।

৭) যদি অন্য কেউ আপনার কাছ থেকে ক্ষমা প্রত্যাশা করেন এবং আপনার ওপর অভিমান করে বসে থাকেন তাহলে আপনার যদি নিজের মন থেকে তা না আসে এবং আপনি যদি মনে করেন আপনার ভুল ছিল না মোটেও তাহলে সে ব্যাপার নিয়ে কখনোই তার কাছে বা অন্য কারো কাছে জবাবদিহি করার কোনো প্রয়োজনই নেই।

সূত্র:powerofpositivity

 

কমেন্টসমুহ
Secret Diary Secret Diary

Top