পোশাক দেহের আকার অনুসারে

পোশাক কিনতে গিয়ে অনেক সময়ই দোটানায় ভুগতে হয়। অথচ নিজের কী প্রয়োজন তা জানা থাকলে কেনাকাটায় খুব বেশি সময় ব্যয় করতে হয় না।

মিরর ডটকো ডটইউকে’র এক প্রতিবেদনে আরামদায়ক এবং শারীরিক গঠনের সঙ্গে মানিয়ে পোশাক বাছাইয়ের কিছু টিপস দেওয়া হয়। অন্যের সামনে নিজেকে আত্মবিশ্বাসীভাবে তুলে ধরতেও সঠিক পোশাক বেছে নিতে হয়।

স্কার্ট একটু ভারি দৈহিক গঠনের জন্য ভালো। ছবি সৌজন্যে: কে ক্র্যাফট।

আপেল আকৃতির ক্ষেত্রে

আপেল আকৃতির শরীর যাদের তাদের, পেটে মেদের পরিমাণ বেশি থাকে। তাদের উচিত ঢোলা কাপড় বেছে নেওয়া, যা পেটের কাছে এঁটে থাকবে না। ছোট হাতার ও লম্বায় ছোট পোশাক তাদের জন্য মানানসই।

সোজা আকৃতি

যাদের শরীরের উপরের এবং নিচের অংশ অনেকটা সমান তাদের এমন পোশাক বেছে নেওয়া উচিত যাতে দৈহিক গঠন ‘কার্ভি’ মনে হয়। এক্ষেত্রে নিচের দিকে ফোলানো, ‘স্লিমিং শোল্ডার’ ইত্যাদি পোশাক বেছে নেওয়া যেতে পারে।

বালুঘড়ির মতো গঠন

সোজাকৃতির গঠনে পোশাক। ছবি সৌজন্যে: নগরদোলা।

যাদের কোমরের গঠন সরু তারাই মূলত এই শ্রেণিতে পড়েন। এক্ষেত্রে দেহের ‘কার্ভ’ বোঝানোর স্বাধীনতা পান এই দৈহিক গঠনের অধিকারীরা। বেশি আঁটসাঁট না তবে শারীরিক গঠন বোঝা যায় এমন পোশাক বেছে নিতে পারেন এরা। কোমরে বেল্টযুক্ত পোশাক এদের জন্য বেশ মাননসই।

নাশপাতির আকৃতি

নাশপাতির মতো দৈহিক গঠন যাদের তাদের শরীরের নিচের অংশে মেদের পরিমাণ বেশি থাকে। অন্যদিকে কাঁধ এবং কোমর পর্যন্ত চিকন থাকে। তারা চাইলেই স্লিভলেস পোশাক বেছে নিতে পারেন। তাছাড়া তাদের জন্য লম্বা স্কার্ট বেশ ভালো। এতে তাদের নিচের মোটাভাব অতোটা চোখে পড়বে না।

কমেন্টসমুহ
Secret Diary Secret Diary

Top