এক নিমিষে বমি বমি ভাব দূর করার ৫ উপায়

অনেক সময় তেমন কোন কারণ ছাড়াই বমি বমি ভাব লাগে। আবার অনেকের ভ্রমণের সময়, মাথা ব্যথা হওয়ার, বদ হজমের কারণে বমি বমি ভাব হয়ে থাকে। এই অনুভূতিটা খুবই অস্বস্তিকর। বমি বমিভাব লাগার সাধারণ কিছু কারণ আছে, মূলত এই কারণগুলোতে বমি বমি ভাব হয়ে থাকে।

কারণ:

অতিরিক্ত ক্লান্তি

গতি অসুস্থতা বা মোশন সিকনেস

যেকোন শারীরিক ব্যথা

মাইগ্রেইনের ব্যথা

অতিরিক্ত ধূমপান

বদহজম ইত্যাদি।

রান্নাঘরে টুকিটাকি দিয়ে এই বমি বমি ভাব দূর করা সম্ভব।

১। আদা

দ্রুত বমি বমি ভাব দূর করতে আদা বেশ কার্যকরী উপাদান। এক টুকরা আদা আপনি আপনার চায়ের সাথে খান, এটি দ্রুত বমি বমি ভাব দূর করে দেবে। আদা হজমের সমস্যা দূর করে পাকস্থলিতে একটি শীতল অনুভূতি প্রদান করে থাকে। ১ টেবিল চামচ আদার রস, ১ টেবিল চামচ লেবুর রস এবং ১/৪ টেবিল চাচম বেকিং সোডা মিশিয়ে খান এটিও বমি বমিভাব দূর করতে সাহায্য করবে।

২। লেবু

খুব সহজ এবং সস্তা একটি উপায় হল লেবু। এক টুকরো লেবু মুখে নিয়ে কিছুক্ষণ চুষে নিন। এছাড়া এক গ্লাস পানিতে এক টুকরো লেবুর রস, এক চিমটি লবণ গুলিয়ে পান করুন। এটি দ্রুত বমি বমি ভাব দূর করে দিবে। এক টুকরো লেবু নাকের কাছে নিয়ে কিছুক্ষণ শুঁকে দেখতে পারেন, এটিও আপনার খারাপ লাগা কমিয়ে দেবে।

৩। জিরা

জিরা আরেকটি উপাদান যা আপনার বমি বমি ভাব নিমিষে দূর করে দিবে। কিছু পরিমাণ জিরা গুঁড়ো করে নিন, তারপর সেটি খেয়ে ফেলুন। এক সেকেন্ডে আপনার বমি বমি ভাব দূর হয়ে যাবে।

৪। ভাতের পানি

শুনে অবাক লাগলেও, ভাতের পানি আপনার বমি বমি ভাব দ্রুত দূর করে থাকে। এক কাপ পানিতে কিছু চাল দিয়েই ১৫-২০ মিনিট সিদ্ধ করে নিন। এবার পানি ছেঁকে নিন এবং এটি আস্তে আস্তে পান করুন।

৫। লবঙ্গ

১ চা চামচ লবঙ্গের গুঁড়ো ১ কাপ পানিতে ৫ মিনিট সিদ্ধ করুন। ঠান্ডা হয়ে গেলে আস্তে আস্তে এটি পান করুন। আপনার যদি এর স্বাদ কটু লাগে তবে এর সাথে ১ চা চামচ মধু মিশিয়ে নিন। এছাড়া ১-২ টি লবঙ্গ কিছুক্ষণ চিবান, এটি সাথে সাথে বমি বমি ভাব দূর করে দেবে।

মোসন সিকনেসের সমস্যা থাকলে সাথে সমসময় লেবু বা লবঙ্গ সাথে রাখুন। পথে বমি বমি লাগলে সাথে সাথে মুখে লেবু বা লবঙ্গ দিয়ে দিন। এটি দ্রুত বমি বমি ভাব দূর করে দেবে।

 

কমেন্টসমুহ
Secret Diary Secret Diary

Top